বাদাম খাওয়ার উপকারিতা!

#বাদাম খাওয়ার উপকারিতা: আসসালামু আলাইকুম, আশা করছি সবাই আল্লাহর রহমতে ভালো আছেন। আজকের আলোচনায় আমরা স্বাস্থ্য বিষয়ে কথা বলব। যে সকল খাবার খাওয়া উচিত তা নিয়ে কথা বলব। আজকের আলোচনায় আমরা বলতে যাচ্ছি বাদাম খাওয়ার উপকারিতা নিয়ে।

আধুনিক যুগে আমরা অনেক ব্যস্ত থাকি শরীরের যত্ন নেওয়ার তেমন টাইম পাই না এবং সবকিছু খুব দ্রুত করার চেষ্টা করি। যেমন – দ্রুত গতির মোবাইল, দ্রুত গতির ইন্টারনেট, দ্রুত গতির মোটরবাইক সবকিছুর ক্ষেত্রে দ্রুত করার চেষ্টা করি।

এমনকি রান্না করার জন্যও সহজ পদ্ধতি করি যেমন- ফাস্ট ফুড,নুডলস ইত্যাদি। এর কারণে আপনার শরীরে নানাবিধ নিউট্রিশনের এর ঘাটতি হচ্ছে যেহেতু আপনি হাইলি ফুড প্রসেস করছেন।

আপনার মনে হচ্ছে আপনি প্রতিদিন ডিম খাচ্ছেন, শাক সবজি খাচ্ছেন, তাও কেন আপনার শরীর দুর্বল লাগে বা কাজ করার প্রতি অনীহা চলে আসে এবং মানসিক শক্তি পান না।

আবার আপনার চুল ঝরে যাচ্ছে, স্কিন বৃদ্ধ হয়ে যাচ্ছে, এরকম নানাবিধ রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন। এর একমাত্র কারণ হচ্ছে আপনার খাবার এ নিউট্রিশন এর ঘাটতি রয়েছে।

এর কারণ আমরা যে সকল জমিতে চাষাবাদ করি; বছরের পর বছর একি জমিতে চাষাবাদ করার ফলে আগের মতো সেই পুষ্টি থাকে না। যেহেতু জমিতে পুষ্টি নেই সেহেতু ওই জমিতে যে ফসল হচ্ছে বা গাছ থেকে যে ফল হচ্ছে তাতেও কিন্তু পুষ্টি নেই। সেই ফসল বা ফল খেয়ে আপনার শরীরের মধ্যে পুষ্টি থাকবে না। যার কারণে আপনি নিউট্রিশন এর ঘাটতি থেকে অনেক সমস্যায় পড়বেন। এই নিউট্রিসন এর ঘাটতি পূরণ করতে চিনা বাদাম অনেক কাজ করে।

[এই পোস্টের সকল তথ্য এই ভিডিয়ো থেকে নেওয়া।]

বাদাম খাওয়ার উপকারিতা

আজকে আমরা বাদাম খাওয়ার উপকারিতা ও গুরুত্ব সর্ম্পকে আপনাদের জানাব। কেন আপনার খাবার তালিকায় প্রতিদিন বাদাম রাখা প্রয়োজন। চলুন জেনে নিই।

বাদামে প্রচুর ভিটামিন থাকে

সর্ব প্রথম বাদাম এ প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন রয়েছে যা অনেক গুরুত্বপূর্ণ। ভিটামিন-বি যেটা আপনার চুল, নখের জন্য গুরুত্বপূর্ণ এবং যাদের ডায়াবেটিক তাদের গ্লুকোজ মেটাবোলিজম ঠিক রাখার জন্য এটা খুব গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। আপনার শরীরে নানাবিধ মেটাবলিক প্রসেস মেটাবলিক ফাংশন এর জন্যও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। তাই নিউট্রিশনের ঘাটতির জন্য আমাদের শরীরে নানাবিধ সমস্যা দেখা দিচ্ছে যা আমরা প্রতিদিন এক মুঠ চিনা বাদাম এর মাধ্যমে দূর করতে পারচ্ছি।

বাদাম সেল ড্যামেজ কমায়

দ্বিতীয়ত চিনা বাদামে খুবই প্রয়োজনীয় ফেস মিনারেল কপার রয়েছে যা আপনার রেড ব্লাসেন তৈরি করতে হেল্প করে এবং সেল ডেমেজকে কমিয়ে দেয় এছাড়াও এটি আপনার শরীরে কোলাজয়েড কমিয়ে দেয় এটা আপনার হার্ট এর জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। প্রতিদিন এক মুঠ চিনা বাদাম খেলে যা আপনার শরীরের কপার এর ঘাটতি পূরণ করতে পারবে।

তৃতীয়ত চিনা বাদামে রয়েছে ভিটামিন বি-৩। এটা হার্ট রোগীর জন্য, কোলেস্টেরল রোগীর জন্য,অটিজম বাচ্চার জন্য এবং অজস্র রোগের জন্য গুরুত্বপূর্ণ। কারণ এটা আপনার ব্লাড সার্কুলেশনকে বাড়িয়ে দেয় এবং শরীরের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এটি একটি পাওয়ারফুল অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট মেডিসিন। এটা আপনার শরীরের মধ্যে এনইডি এর পরিমাণ বাড়িয়ে দেয় যা খুব পাওয়ার ফুল অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট। আপনি আপনার বায়োটিন বি-৩ এর ঘাটতি পূরণ করতে প্রতিদিন এক মুঠ চিনা বাদাম গ্রহণ করতে পারেন।

এ ছাড়াও চিনা বাদাম এ অজস্র নিউট্রিয়েন্স রয়েছে যা ফ্লোরিন, ম্যাগনেসিয়াম, ফসফরাস ইত্যাদি আপনার স্বাস্থের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। যা আপনার অন্যান্য খাবার থেকে পাচ্ছেন না; তার জন্য চিনা বাদাম খাওয়া প্রয়োজন।

বাদাম খাওয়ার প্রয়োজনীয়তা

চিনা বাদাম আমাদের স্বাস্থের জন্য অ্যান্টি ইনফমেট! এর মধ্যে হেলদি, ফ্যাটস রয়েছে যা আপনার শরীরের ভালো কোলেস্টেরল এর মাত্রা বাড়িয়ে দেবে এবং খারাপ কোলেস্টেরল এর মাত্রা কমিয়ে দেবে। যারা হার্ট এর রোগী তাদের জন্য এটা খুব ভালো কাজ করে। চিনা বাদামের মধ্যে খুব শক্তিশালী কিছু অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট রয়েছে এবং বায়োএক্টিভ রয়েছে। যা আপনার স্বাস্থের জন্য খুব খুব গুরুত্বপূর্ণ।

মেডিকেল গবেষণায় দেখে গেছে যে পিনাটস বা চিনা বাদাম আমাদের স্বাস্থের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ। কারণ এটা আমাদের হার্ট রোগীর জন্য উপকারী এবং পিত্ততলিতে যাদের পাথর রয়েছে, বা পাথর হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে তাদের এটা খুব গুরুত্বপূর্ণ! কারণ গবেষণায় দেখা গেছে যে চিনা বাদাম আপনার পিত্ততলির পাথরকে প্রতিরোধ করে। যদি আপনার লিভার ইনফ্ল্যামেশন বা এসব সেকশন নিয়ে প্রবলেম থেকে থাকে তাহলে আপনি নিয়মিত চিনা বাদাম গ্রহণ করতে পারেন।

যদি আপনি আপনার স্বাস্থ্য ঠিক রাখতে চান, হেলদি শরীর চান, এবং স্ট্রেস কমাতে চান এবং ডায়াবেটিক, কোলেস্টেরল, হার্ট রোগ ও নানাবিধ রোগ থেকে সুরক্ষা পেতে চান; তাহলে প্রতিদিন এক মুঠ করে চিনা বাদাম গ্রহণ করুন। চিনা বাদাম আমাদের মস্তিষ্ক এর সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করে। প্রতিদিন চিনা বাদাম বা এর মাখন খেলে আপনি স্বয়ংক্রিয় মস্তিষ্ক পেতে পারেন। তাই আমাদের প্রতিদিন এর খাদ্য তালিকায় চিনা বাদাম রাখা খুব প্রয়োজন।

আশাকরি সবাই বাদাম খাওয়ার উপকারিতা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পেরেছেন। আরও কিছু জানতে চাইলে কমেন্ট করুন!

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here